|| ডেস্ক রিপোর্ট ||

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) ইতিহাসে সর্বোচ্চ পাঁচবারের চ্যাম্পিয়ন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স এবারের আসরে আইপিএলে যেন নিজেদের হারিয়ে খুঁজছে। পাঁচ ম্যাচের পাঁচটিতে হেরে টুর্নামেন্ট শুরু করেছে রোহিত শর্মার দল। এখনও পর্যন্ত টুর্নামেন্টে জয়ের মুখ না দেখা একমাত্র দল মুম্বাই।

বুধবার পুনের মহারাষ্ট্র ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন স্টেডিয়ামে পাঞ্জাব কিংসের বিপক্ষে জেতার মতো অবস্থায় থেকেও জিততে পারেনি মুম্বাই। শেষ পর্যন্ত পাঞ্জাবের কাছে ১২ রানে হেরেছে তারা। এমন হারের পর মুম্বাই অধিনায়ক রোহিত শর্মার কণ্ঠে ঝরেছে হতাশার বাণী। 

শুধু রোহিতই নন, দলের এমন বিপর্যয়ে হতাশ মুম্বাই কোচ মাহেলা জয়াবর্ধনে। তার মতে, ব্যাটিং, বোলিং ও ফিল্ডিং তিন বিভাগের কোনোটাতেই ক্লিক করতে পারছে না মুম্বাই। বুধবার পাঞ্জাবের বিপক্ষে রমনদ্বীপ সিংকে বসিয়ে টাইমাল মিলসকে একাদশে নেওয়া হয়। একজন ব্যাটারকে  বসিয়ে মিলসকে নিয়ে বোলিং অপশনটা বাড়ায় মুম্বাই।

এটাই মুম্বাইয়ের সেরা একাদশ কি না এমন প্রশ্নের জবাবে জয়বর্ধনে বলেছেন, 'কন্ডিশন বিবেচনায় আমরা সেরা একাদশ নিয়ে খেলেছি। এভাবেই আমরা একটা দক্ষ একাদশ সাজিয়েছি। তবে পরিকল্পনা সবসময় কাজে দেয় না। ব্যাটিং, বোলিং ও ফিল্ডিং তিন বিভাগে আমরা ধারাবাহিকভাবে পারফর্ম করতে পারছি না। আমাদের ফিনিশিংটাও ঠিকঠাক হচ্ছে না।'

জয়াবর্ধনের মতে, সূর্যকুমার যাদব হচ্ছেন সেরা ফিনিশার। এই ব্যাপারে শ্রীলঙ্কার সাবেক অধিনায়ক বলেছেন, 'আমরা ছয় ব্যাটার নিয়ে খেলেছি। তার (সূর্যকুমার) মতো গেম ভালোমতো ফিনিশ করতে আর কেউ পারবে না। তাই আমরা তাকে পাঁচ নম্বরে পাঠিয়েছি। কারণ পাওয়ার প্লেতে বিপক্ষ বোলাররা সুইং পাচ্ছিল। সেজন্য আমরা তাকে পাওয়ার প্লেতে ব্যাটিং করতে পাঠাইনি।  তাতে সে তার স্বভাবসুলভ ব্যাটিংটা করতে পারত না।' 

জসপ্রিত বুমরাহ ছাড়া মুম্বাইয়ের কোনো পেস বোলার ঠিকঠাক বোলিং করতে পারছেন না। ড্যানিয়েল স্যামস প্রথম তিন ম্যাচে ১১ ওভার বোলিং করে ১৩৯ রান দিয়ে মাত্র ১ উইকেট নিয়েছেন। মিলস ৬ উইকেট নিলেও ওভারপ্রতি প্রায় ১০ রান করে দিচ্ছেন। জয়দেব উনাদকাট, বাসিল থাম্পিরাও ওভারপ্রতি ৯ করে রান বিলাচ্ছেন।

বোলিং আক্রমণ নিয়ে হতাশ জয়াবর্ধনে বলেন, 'আমরা চার-পাঁচ বছরে ভালো বোলিং আক্রমণ তৈরি করেছি। মেগা নিলামের পর অনেক বোলারকে আমরা ধরেও রাখতে পারিনি। আমাদের ভিন্ন কিছু করা উচিত ছিল। অতীতের সঙ্গে বর্তমান বোলিং আক্রমণ তুলনা করা আসলেই কঠিন। এখনও আমাদের অনেক গুনগত মানের পেসার আছে এবং আমরা সর্বোচ্চটাই চেষ্টা করছি। নিলাম থেকে পাওয়া অন্যতম সেরা বোলার জফরার অনুপস্থিতি আমাদের খুব ভোগাচ্ছে।'