সংকটে মানবিকতার হাত বাড়িয়ে দেওয়াই আ.লীগের ঐতিহ্য : কাদের

করোনাভাইরাসের সংকটে কর্মহীন হয়ে পড়া ঢাকা শহরের ভাসমান মানুষের জন্য নতুন কর্মসূচি হাতে নেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

আজ সোমবার দুপুরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসি মোড়ে ভাসমান মানুষদের বিনামূল্যে খাদ্য বিতরণের ৯৯তম দিনে ভার্চুয়াল মাধ্যমে যুক্ত হয়ে এ আহ্বান জানান সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী।

করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব শুরু হওয়ার পর থেকে টানা ৯৯ দিন ধরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ও এর আশপাশের এলাকার ভাসমান ও কর্মহীন মানুষদের মধ্যে খাদ্য বিতরণ করে আসছে ডাকসুর সদস্য তানভীর হাসান সৈকত।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণের মধ্যে সাধারণ ছুটি তুলে নিলেও বঙ্গবন্ধু জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে ১০০ দিন খাদ্য বিতরণের কার্যক্রম হাতে নেন সৈকত।

টিএসসিতে ভার্চুয়াল মাধ্যমে যুক্ত হয়ে ভাসমান মানুষের সামনে কথা বলেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, ‘জাতীর যেকোনো দুর্যোগে অসহায় মানুষের পাশে সবার আগে দাঁড়ায় আওয়ামী লীগ। জন্মলগ্ন থেকে আজ অবধি বিগত ৭০ বছরের ইতিহাসে মানুষের পাশে থেকে আস্থা অর্জন করেছে মাটি ও মানুষের দল আওয়ামী লীগ। সংকটে মানুষের পাশে মানবিকতার হাত বাড়িয়ে দেওয়ার পার্টি আওয়ামী লীগ, এটাই আওয়ামী লীগের ঐতিহ্য।’

করোনাভাইরাসের সংকটে সারা দেশের অসহায় কর্মহীন মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে মানবিকতার উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতারা। জাতীয় জীবনে যেকোনো দুর্যোগে তরুণরাই এগিয়ে আসে । তরুণদের সম্মিলিত প্রচেষ্টা মানুষের মধ্যে সাহস জোগাবে। আমি তরুণ যুবক ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের ত্যাগের মহিমায় উজ্জীবিত হয়ে জনমানুষের পাশে দাঁড়াতে আহ্বান জানাচ্ছি।

দলের নেতাকর্মী ও জনপ্রতিনিধিরা এ পর্যন্ত এক কোটি ২৫ লাখেরও বেশি পরিবারকে খাদ্য সহায়তার পাশাপাশি ১০ কোটি টাকার বেশি নগদ অর্থ প্রদান করেছে জানিয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, করোনা প্রতিরোধে তারা চশমা, মাস্ক, পিপিই, সাবান, সেনিটাইজার, স্প্রে মেশিনসহ বিভিন্ন সুরক্ষা সামগ্রী বিতরণ করেছে।

ওবায়দুল কাদের বলেন, জাতীয় জীবনে যেকোনো দুর্যোগ ও সংকটে তরুণরা এগিয়ে এসেছে, তাদের সম্মিলিত তারুণ্য অসহায় মানুষের সাহস জোগাবে।

সর্বশেষ সংবাদ