কুমিল্লা কোভিড হাসপাতালে আট বছরের শিশুসহ চারজনের মৃত্যু

করোনায় সংক্রমিত ব্যক্তিদের চিকিৎসার জন্য স্থাপিত কুমিল্লা কোভিড-১৯ হাসপাতালে এ রোগের উপসর্গ নিয়ে আজ মঙ্গলবার ভোররাত সোয়া চারটা পর্যন্ত আট বছরের এক কন্যাশিশুসহ চারজন মারা গেছেন। মৃত ব্যক্তিদের মধ্যে কুমিল্লা সিটি করপোরেশনের দুজন, কুমিল্লার আদর্শ সদর উপজেলার একজন ও চাঁদপুরের শাহরাস্তি উপজেলার একজন।

হাসপাতালের তথ্য শাখার সহকারী সার্জন মুক্তা রানী ভূঁইয়া প্রথম আলোকে বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, গতকাল সোমবার সন্ধ্যা ৬টা ৫ মিনিটে মারা যান কুমিল্লা সিটি করপোরেশনের কোটবাড়ী এলাকার ৬০ বছরের এক নারী। তিনি ২৪ জুন জ্বর, সর্দি ও শ্বাসকষ্ট নিয়ে ভর্তি হন। গতকাল হাসপাতালে ভর্তি হয়ে রাত নয়টায় কুমিল্লার আদর্শ সদর উপজেলার এক ব্যক্তি মারা যান। কুমিল্লা সিটি করপোরেশনভুক্ত এলাকার আট বছরের এক কন্যাশিশু গতকাল রাত ১১টায় মারা যান। সে ২৩ জুন এই হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিল। চাঁদপুরের শাহরাস্তি উপজেলার ৬৫ বছরের এক বৃদ্ধা ২৭ জুন ভর্তি হন। আজ মঙ্গলবার ভোররাত ৪টা ১৫ মিনিটে তিনি মারা যান।

হাসপাতালের পরিচালক চিকিৎসক মো. মুজিবুর রহমান বলেন, বর্তমানে কোভিড হাসপাতালে ১১৩ জন রোগী ভর্তি আছেন। এর মধ্যে করোনা পজিটিভ ৪১ জন ও উপসর্গ নিয়ে ৭২ জন রয়েছেন। আজ নতুন করে ভর্তি হয়েছেন ৩৩ জন। এ হাসপাতালে ৩ জুন থেকে আজ পর্যন্ত ৭৫০ জন ভর্তি হয়েছেন। এর মধ্যে সেবা নিয়ে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৪৯৩ জন। এ পর্যন্ত মারা গেছেন ১৪৩ জন। এর মধ্যে করোনায় ২৫ জন এবং উপসর্গ নিয়ে ১১৮ জন মারা যান।

সর্বশেষ সংবাদ